1. info@dailyjanatarbarta.com : Admin :
  2. admin2@dailyjanatarbarta.com : Editor Janatar Barta : Editor Janatar Barta
  3. araf@yopmail.com : araf :
  4. editor@dailyjanatarbarta.com : JanatarBarta Editor : JanatarBarta Editor
  5. test@yopmail.com : test :
সংবাদ শিরোনাম :
ভোলার মেঘনায় মালবাহী কার্গোতে ডাকাতি! দূই জলদস্যুকে ধরে ফেললো কোস্ট গার্ড প্রকাশিত কাল্পনিক সংবাদের তীব্র প্রতিবাদ জানালেন বিজেপি নেতা জামালউদ্দিন চকেট সিপিডিএ ‘র দ্বিতীয় বর্ষপূর্তিতে ক্যারিয়ার উন্নয়ন সপ্তাহ ১৫-২১ অক্টোবর সারাদেশে টিসিবির পণ্য বিক্রি শুরু ৬ মাস ২১ দিন পর দলীয় কার্যালয়ে রিজভী কোনো নির্বাচন নির্বাচন খেলা হবে না: ওবায়দুল কাদের সারাদেশে টিসিবির পণ্য বিক্রি শুরু মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনে মাঠ প্রশাসন মূল চালিকাশক্তি: প্রধানমন্ত্রী ভোলার মেঘনায় ৮ টি মালবাহী কার্গো জাহাজে ডাকাতির অভিযোগ! পুলিশের রহস্যময় ভূমিকা সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্কসংকেত

করোনায় মৃত্যু ছাড়াল ২৬ হাজার

  • পোস্টের সময়কাল : সোমবার, ৩০ আগস্ট, ২০২১
  • ৬১ মোট ভিউস্

দেশে করোনায় মৃত্যু, সংক্রমণ ও শনাক্তের হার ফের বেড়েছে। ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তদের মধ্যে আরও ৮৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে এ মহামারিতে মৃতের মোট সংখ্যা ২৬ হাজার ছাড়াল।

২০ আগস্ট দেশে করোনাভাইরাসে মোট মৃত্যু ২৫ হাজার ছাড়ায়। এরপর নয় দিনে আরও এক হাজার মানুষের প্রাণ কেড়ে নিল করোনা। তবে মৃতের সংখ্যা ২৪ হাজার থেকে ২৫ হাজারে পৌঁছাতে সময় লেগেছিল পাঁচ দিন। শনিবার মৃত্যু হয় ৮০ জনের। সব মিলিয়ে দেশে করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ২৬ হাজার ১৫।

২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ৩ হাজার ৯৪৮ জনের দেহে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়েছে। আগের দিন এ সংখ্যা ছিল ৩ হাজার ৪৩৬ জন। এ নিয়ে করোনাভাইরাসে শনাক্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৪ লাখ ৯৩ হাজার ৫৩৭। একদিনে নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৪ দশমিক ১৪ শতাংশ। আগের দিন এ হার ছিল ১৩ দশমিক ৬৭ শতাংশ।

একদিনে সুস্থ হয়েছেন আরও ৬ হাজার ৪৬৬ জন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত সুস্থ হলেন ১৪ লাখ ১৫ হাজার ৬৯৭ জন। রোববার স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ ধরা পড়েছিল গত বছরের ৮ মার্চ। ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের বিস্তারে জুন থেকে রোগীর সংখ্যা হু হু করে বাড়তে থাকে। এ মাসের প্রথম সপ্তাহ পর কমতে থাকে সংক্রমণ। প্রথম রোগী শনাক্তের ১০ দিন পর গত বছরের ১৮ মার্চ দেশে প্রথম মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। এর মধ্যে ৫ ও ১০ আগস্ট ২৬৪ জন করে মৃত্যু হয়। যা মহামারির মধ্যে এক দিনে সর্বোচ্চ সংখ্যা।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ৭৮৯টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা হয়েছে। এর মধ্যে আরটি-পিসিআর ল্যাব ১৩৬টি, জিন এক্সপার্ট ৫৪টি, র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন ৫৯৯টি। এসব ল্যাবে ২৭ হাজার ১৭৭টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরীক্ষা করা হয়েছে ২৭ হাজার ৯২১টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ৮৮ লাখ ৬৯ হাজার ৩৯৩টি। এ পর্যন্ত শনাক্তের হার ১৬ দশমিক ৮৪ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৪ দশমিক ৭৯ এবং মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৭৪ শতাংশ। ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়াদের মধ্যে পুরুষ ৪১ ও নারী ৪৮ জন। এদের মধ্যে সরকারি হাসপাতালে ৬৯, বেসরকারি হাসপাতালে ১৮ ও বাড়িতে দুজন মারা গেছেন। মৃতদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ২৭ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ২১, রাজশাহী বিভাগে সাতজন, খুলনা বিভাগে নয়, বরিশাল বিভাগে আটজন, সিলেট বিভাগে ১০ জন, রংপুর বিভাগে পাঁচজন ও ময়মনসিংহ বিভাগে দুজন আছেন। তাদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৯১ থেকে ১০০ বছরের মধ্যে একজন, ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে সাতজন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে ১৮ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ২৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ১৬ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ১৫ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে পাঁচজন, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে তিনজন রয়েছেন।

শেয়ার করুন....

আরো দেখুন